বন্ধ হয়ে গেছে পদ্মা সেতুর রেল পথের সংযোগ সড়কের কাজ

196
বন্ধ হয়ে গেছে পদ্মা সেতুর রেল পথের সংযোগ সড়কের কাজ
বন্ধ হয়ে গেছে পদ্মা সেতুর রেল পথের সংযোগ সড়কের কাজ

কাজী আরিফ

অপরিকল্পিত বা ভূল নক্সা করায় বন্ধ হয়ে গেছে পদ্মা সেতুর রেল পথের সংযোগ সড়ক বা র‌্যামের কাজ। যেভাবে এ সংযোগ সড়ক তৈরী করা হচ্ছিল তাতে পদ্মা সেতুতে কাভার্টভ্যান ও এর থেকে উচু গাড়ী পারাপার হতে পারবেনা। সেতুতে উঠা ও নামার সময় রেল পথের উচ্চতা কম হওয়ায় এ সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে। গত ৮ সেপ্টেম্বর সরকারের সর্বোচ্চ পর্যায়ের এক বৈঠকে এ কাজ বন্ধ রেখে নতুন করে নক্সা তৈরীর নির্দেশনা দেয়া হয়েছে বলে জানা গেছে। স্বপ্নের পদ্মাসেতুর কাজ প্রায় শেষ হতে চলেছে। কোনো বাধা-বিপত্তি না এলে আগামী বছরের ডিসেম্বরে পদ্মাসেতু দিয়ে যান চলাচল শুরু হওয়ার কথা। কিন্তু এরই মধ্যে পদ্মাসেতুর রেললাইন ডিজাইনে মারাত্মক ‘ত্রুটি’ দেখা দিয়েছে। পদ্মা রেলসংযোগ প্রকল্পের ডিজাইনের ভুলে সেতু দিয়ে ট্রাক-কাভার্ড ভ্যান চলাচল নিয়ে দেখা দিয়েছে অনিশ্চয়তা। সেতুর দুই প্রান্তে রাস্তার ওপর দিয়ে টানা হচ্ছে রেললাইন। কিন্তু লাইনের উচ্চতা এত কম যে নিচের হেডরুম দিয়ে বেশি উচ্চতার যানবাহন সেতুতে ওঠানামা করতে পারবে না।

সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মাওয়া চৌরাস্তার কাছে পদ্মা সেতুতে ১ নং পিলারের কাছে থেকে তিনটি সংযোগ সড়ক বা র‌্যাম আকৃতির পথ তৈরী করা হচ্ছে। যার একটি দিয়ে পদ্মা সেতুতে গাড়ী উঠবে, আরেকটি দিয়ে গাড়ী নামবে। আর তৃতীয় র‌্যাম বা পথটি দিয়ে রেল আসা যাওয়া করবে পদ্মা সেতুর উপর দিয়ে। জাজিড়া প্রান্তেও অনুরূপ সংযোগ সড়ক রয়েছে। মাওয়া প্রান্তে রাস্তার পূর্ব প্রান্ত দিয়ে সড়ক পথের র‌্যামের উপর দিয়ে রেল লাইনের র‌্যাম চলে যাচ্ছে। কাজও এগিয়েছে অনেক দূর। রেল সংযোগ সড়কের বেশ কয়েকটি পিলারও উঠে গেছে। কিন্তু বাস্তবতা হচ্ছে সড়ক ও রেল পথের মাঝে যে উচ্চতা রয়েছে, তার মধ্য দিয়ে কাভার্টভ্যান ও তার থেকে উচু গাড়ী সেতুতে উঠা-নামা সম্ভব নয়। এ পথে মংলা বন্ধর হয়ে কোন ট্রাক বা লরি উচু করে মালামাল নিয়ে আসলে তা আর সেততেু উঠতে পারবেনা। যখনই সেতুতে এসব যানবাহন উঠতে যাবে তখনই সড়ক পথের উপরে থাকা রেল লাইনের গার্ডারের সাথে আটকে যাবে এসকল যানবাহন। এরকম অপরিকল্পিত কাজ অনেক দূর এগিয়েছে। সাধারণত এরকম পথের জন্য দুটি সংযোগ সড়কের মাঝে উচ্চতার গ্যাপ থাকার কথা ৫ পয়েন্ট ৭ মিটার। কিন্তু এখানে রাখা হয়েছে ৪ পয়েন্ট ৮ মিটার, যা দিয়ে সাধারণ মাপের উচ্চতার ক্যাভার্টভানও যাতায়াত করতে পারবেনা।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে বিষয়টি সরকারের সর্বোচ্চ পর্যায় পৌছালে গত ৮ সেপ্টেম্বর মন্ত্রী পরিষদের সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলামের সভাপতিত্বে একটি বৈঠক হয়। বৈঠকের সিদ্ধান্ত মতে কাজ বন্ধ রেখে রেল মন্ত্রণালয়কে রেল সংযোগ পথের নক্সা পূণরায় তৈরী করার নির্দেশ দেয়া হয়। সূত্র মতে এ নিয়ে গত ৯ আগষ্ট রেল মন্ত্রণালয়ে একটি বৈঠকও হয়েছে। তবে বৈঠকে কি সিদ্ধান্ত হয়েছে তা জানা যায়নি।
এ ব্যাপারে পদ্মা সেতু রেল সংযোগ (১ম সংশোধিত) প্রকল্প পরিচালক গোলাম ফখরুদ্দিন আহমেদ চৌধুরীর কাছে মোবাইলে জানতে চাইলে তিনি এরকম বিষয় জানেননা বলে কথা এড়িয়ে গিয়ে মোবাইল সংযোগ বিচ্ছন্ন করে দেন। একই ধরণের কথা বলেন প্রকল্পটির চিপ ইঞ্জিনিয়ার নাজনিন কেয়া।#