মাদার তেরেসা গোল্ডেন এ্যাওয়ার্ড-২০২১ পেলেন আলহাজ্ব জিলানী মিয়া।

70

করোনা মহামারীতে জনসচেতনতা ও সমাজসেবায় বিশেষ অবদান রাখায় জার্নালিস্ট সোসাইটি ফর হিউম্যান রাইটস এর পক্ষ থেকে গৌরবময় কৃতিত্বের স্বীকৃতি স্বরুপ মাদার তেরেসা গোল্ডেন এ্যাওয়ার্ড-২০২১ ভূষিত হোন ঢাকা কেরানীগঞ্জে একমাত্র বাস্তা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি আলহাজ্ব জিলানী মিয়া।

২৩ জানুয়ারি শনিবার বিকেলে ঢাকার সেগুনবাগিচায় কঁচি-কাঁচার মেলা মিলনায়তনে জার্নালিস্ট সোসাইটি ফর হিউম্যান রাইটস এর আয়েজনে সংগঠনটির ১১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে অস্প্রদায়িক বাংলাদেশ ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় আমাদের করণীয় শীর্ষক এক অনুষ্ঠানে করোনা মহামারীতে জনসচেতনতা ও সমাজসেবায় বিশেষ অবদানের জন্য বিচারপতি ফয়সাল মাহামুদ ফয়েজি, ব্যরিস্টার জাকির হোসেন, পীরজাদা হারুন রশিদ, অতিরিক্ত সচিব অর্থ মন্ত্রনালয় ও সাবেক ডি আইজি, আলহাজ্ব জিলানী মিয়া কে এই এ্যাওয়ার্ড তুলে দেন।

উল্লেখ্য যে, আলহাজ্ব জিলানী মিয়া কেরানীগঞ্জ বাস্তা ইউনিয়নে দীর্ঘদিন যাবত জনসেবায় কাজ করে যাচ্ছেন। ইউনিয়নের প্রতিটি ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে ঘুরে ঘুরে গরীব-দুঃখী মানুষের পাশে দাড়াচ্ছেন। সাম্প্রাতিক সময়ের করোনা মহামারীতেও তিনি এলাকায় বিভিন্ন ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের ঘরে ঘরে চাল, ডাল, নগদ টাকা দিয়ে সহযোগিতা করেছেন । করোনাকালীন সময়ে জনসচেতনতায় মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটেশন ও লিফলেট বিতরণ করেছেন।

আলহাজ্ব জিলানী মিয়া কেরানীগঞ্জ বাস্তা ইউনিয়নে একজন সমাজসেবক হিসেবে সুপরিচিত। বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠান, দূর্যোগে, বিপদ জনগণের পাশে এগিয়ে আসেন। তিনি রাজাবাড়ী স্কুল এন্ড কলেজের অভিভাবক সদস্য ,দড়িগাও বালুয়াটেক দারুল উলুম মাদ্রাসার সাধারণ সম্পাদক। এছাড়াও তিনি দড়িগাও প্রাইমারী স্কুলের সাবেক সহ-সভাপতি ছিলেন , দড়িগাও দক্ষিণ পাড়া জামে মসজিদ কমিটির কোষাধ্যক্ষ হিসেবে এবং সমাজের বিভিন্ন উন্নয়ন মূলক কাজে জড়িত থেকে বাস্তাবাসীর মনে জায়গা করে নিয়েছেন।
এ্যাওয়ার্ড ভূষিত হয়ে আলহাজ্ব জিলানী মিয়া বলেন, গরিব দুঃখী মেহনতী মানুষের মুখে হাসি ফোঁটানোর জন্য কাজ করে যাচ্ছি এবং ইনশাআল্লাহ, মৃত্যুর আগ পর্যন্ত কাজ করে যাবো। মানুষের ভালোবাসাই আমার কাছে বড় প্রাপ্য।