লঞ্চের ধাক্কায় ট্রলারের ক্ষতি, মাঝ পদ্মা থেকে ফিরিয়ে এনে লঞ্চের স্টাফদের মারধর

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি

শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটের মাঝ পদ্মায় লঞ্চের ধাক্কায় একটি ট্রলারের ক্ষতি সাধিত হলে ট্রলার চালকরা লঞ্চের স্টাফদের মারধর করেছে। ক্ষুব্ধ ট্রলার চালক আরো কয়েকটি ট্রলার নিয়ে মাঝ পদ্মা থেকে যাত্রীসহ লঞ্চটি জব্দ করে শিমুলিয়া ঘাটে নিয়ে আসে। এতে আতঙ্কিত লঞ্চ যাত্রীরা ৯৯৯-এ কল করে নৌ পুলিশের সহায়তায় উদ্ধার হয়েছে।
মাওয়া নৌ পুলিশ সূত্রে জানা যায়, সোমবার সন্ধ্যা ৬টা দিকে মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ের শিমুলিয়া ঘাট থেকে এমভি সুতারপাড় নামক একটি যাত্রীবাহি লঞ্চ বাংলাবাজার ঘাটের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। লঞ্চটি ঘাটের কাছে পেছনে দিকে ঘোরার সময় একটি ট্রলারকে ধাক্কা দেয়। এতে ট্রলারের কিছুটা ক্ষতি হয়। ক্ষুব্ধ ট্রলার চালক রুবেল হোসেন (৩৪) শিমুরিয়া ঘাট থেকে ২০-২৫জনসহ ট্রলার নিয়ে মাঝ নদী থেকে লঞ্চটি জব্দ করে নিয়ে আসে। এসময় তারা লঞ্চের মাস্টার আলী হোসেন ও তার সহকারী ছলিম উদ্দিন শেখকে মারধর করে। এতে আতঙ্কিত হয়ে লঞ্চ যাত্রীরা ৯৯৯ –এ কল দিলে মাওয়া নৌ পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধার করে। এ সময় হামলাকারী ট্রলার চালকদের আটক করে নৌ পুলিশ।
মাওয়া নৌ পুলিশের আইসি পরিদর্শক আবু তাহের জানিয়েছেন, লঞ্চ চালক মালিকদের পক্ষ থেকে কোন অভিযোগ না পাওয়ায় আটকৃত ট্রলার চালকদের ছেড়ে দেয়া হয়েছে। তবে আগামীকাল (আজ) মঙ্গলবার এ বিষয়ে তাদের সাথে আলোচনায় বসা হবে। #