লৌহজংয়ের গোয়ালীমান্দ্রা হাটে আগুণ, ১০ লাখ টাকার ক্ষতি

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি

মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ের ঐতিহ্যবাহী গোয়ালী মান্দ্রা হাটে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ব্যবসায়ীদের প্রায় ১০ লাখ টাকা মূল্যের পাটের খঁড়ি পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। আজ সোমবার বেলা ১১টার দিকে এই অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। লৌহজং ও শ্রীনগর উপজেলা ফায়ার সার্ভিসের ঘন্টা ঘানেকের চেষ্টায় অগুণ নিয়ন্ত্রণে আসে। ফায়ার সার্ভিসের তড়িৎ ব্যবস্থায় বড় ধরণের ক্ষতি হতে রক্ষা পায় হাটের দোকান পাটগুলো।
স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা যায়, প্রতি মঙ্গলবারের ন্যায় আগামীকাল মঙ্গলবারও সেখানে হাট বসার কথা ছিল। সে লক্ষে ব্যবসায়ীরা তাদের মালামাল এক দুই দিন পূর্ব থেকেই হাটে মজুদ করছিল। বেলা ১১ টার দিকে পাট খঁড়ি হাটের মজুদ করা পাটের খঁড়িতে আগুণ লাগলে দাউ দাউ করে জ¦লে উঠে। খবর পেয়ে লৌহজং ও শ্রীনগর উপজেলার ২টি ফায়ার সার্ভিস ইউনিট এসে ঘন্টাখানি চেষ্টা করে অগুণ নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে ব্যবসায়ীরা দাবি করেছে।
লৌহজং উপজেলা ফায়ার সার্ভি কর্মকর্তা আব্দুল মতিন জানান, হাটে মজুদ করা পাট খঁড়িতে বেলা ১১টার দিকে হঠাৎ করে আগুণ লাগলে খবর পেয়ে দ্রুত ছুটে এসে আগুণ নিয়ন্ত্রণে আনি। ধারণা করা হচ্ছে বিড়ি সিগারেটের আগুণ থেকে এ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে থাকতে পারে। ক্ষয়-ক্ষতির পরিমান জানার চেষ্টা চলছে।


ঘটনাস্থলে উপস্থিত লৌহজং উপজেলা পরিষদের মহিল ভাইস চেয়ারম্যান রিনা আক্তার জানিয়েছেন, এলাকাটি মাদককারবারী ও মাদক সেবীদের আকড়া। ধারণা করছি মাদক সেবীরা মাদক সেবনের পর সেখানে বিড়ি সিগারেট বা মাদকে ব্যবহৃত আগুণ ফেললে অতি দাহ্য বস্তু পাটের খঁড়িতে সহজে আগুণ লেগে যায়। এসকল মাদক সেবীদের আরো কঠোর হস্তে দমন করতে হবে।#