সিরাজদিখানে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ফের সংঘর্ষে টেঁটাবিদ্ধ ৩ ॥ বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাট

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি॥

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ফের দুইপক্ষেও মধ্যে টেঁটা যুদ্ধ হয়েছে। এতে ৩ জন টেঁটাবিদ্ধসহ আহত হয়েছে কমপক্ষে ১০ জন। এসময় বাড়িঘর ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে। বৃহস্পতিবার দুপুর ১২ টার দিকে উপজেলার বালুচর ইউনিয়নের আকবরনগর গ্রামের ট্রলার ঘাট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। টেঁটাবিদ্ধ আহত ৩ জনকে ঢাকা মিটফোর্ট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। তবে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেছে।
এলাকাবসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার বেলা ১২টার দিকে উপজেলার বালুচর ইউনিয়নের আকবরনগর গ্রামের ট্রলার ঘাটে সামেদ আলী ও হাছুন আলী সর্মথকদের মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এসময় সামেদ আলী ও আবজাল মেম্বারের লোকজন হাছুন আলীর সমর্থকদের বাড়িঘর ঘেরাও করে হামলা চালিয়ে ভাংচুর ও লুটপাট করে। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বেধে গেলে তারা টেঁটা যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ে। এতে ৩জন টেঁটাবিদ্ধহস আহত হয় কমপক্ষে ১০ জন। আহত টেঁটাবিদ্ধ তিনজনকে ঢাকার মিটফোর্ট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাৎক্ষনিকভাবে তাদের পরিচয় জানা যায়নি। বাকীদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে।
সিরাজদিখান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ বোরহান উদ্দিন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দুইপক্ষের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। খবর পেয়ে ঘটনার পরপরই পুলিশ পাঠিয়ে পিিরস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেছি। এখন কোন অভিযোগ পাইনি।
উল্লেখ্য এরপূর্বে সোমবার রাত ১০টায় মঙ্গলবার সকালে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে চলাকালে ৩ জন টেঁটাবিদ্ধসহ ১০ জন আহত হয়। সেসময় দুইপক্ষের সংঘর্ষে ৪- ৫টি বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাট করা হয়।#